Breaking News

উজ্জ্বল নমনীয় ত্বকের জন্য খান রস, জেনে নিন 9টি চমৎকারী রসের নাম

মসৃন সুন্দর এবং উজ্জ্বল ত্বক কে না পেতে চায়। তা পাবার জন্য আমরা প্রত্যেকদিন কিছু না কিছু করে থাকি। অনেকেই আছেন যারা বাজারলব্ধ রাসায়নিক যুক্ত সামগ্রী কেনেন এবং প্রত্যেকদিন তা ব্যবহার করেন। কিন্তু তারা ভুলে যান যে প্রাকৃতিক পরিচর্চার কোনো বিকল্প হয় না। একটি সুষম খাদ্যাভ্যাস শুধু ভেতর থেকেই আপনাকে স্বাস্থ্যবান করে তোলে না বাইরে থেকেও শরীরে জৌলুশ নিয়ে আসে। সবজি ও ফলের রস আপনার ত্বকের সমস্যা মেটানোর জন্য যথেষ্ট। আসুন দেখে নিই কি ভাবে ত্বকের সমস্যায় কাজে দেয় বিভিন্ন ফল ও সবজির রস।

ফল ও সবজিতে থাকে ফাইবার এবং অনেক প্রয়োজনীয় পুষ্টি পদার্থ যা শরীরে বিষাক্ত দ্রব্য কে বের করে দিতে সাহায্য করে। এর ফলে চুল এবং ত্বক উজ্জ্বল হয়ে ওঠে। এছাড়া থাকে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যা শরীরে থাকা ফ্রী রেডিক্যালের প্রভাবকে নষ্ট করে দেয়। ফলে শরীরে ক্ষয় কম হয়।
দেখে নেওয়া যাক কোন কোন ফলের রোসে কি কি থাকে

  1. গাজর এবং বিটের রস: বিটে থাকে জিঙ্ক, আয়রন, ফলিক অ্যাসিড, ভিটামিন সি ম্যাঙ্গানিজের মতো জরুরি পদার্থ যা আপনাকে ভেতর থেকে পরিশোধিত করে এবং আপনার ত্বককে করে তোলে উজ্জ্বল। গাজরে থাকা ভিটামিন এ, ত্বকের বলিরেখা দূর করে, ব্রণের সমস্যা থেকে মুক্তি দেয় এবং দাগ ছোপ কমায়। এছাড়া থাকে ফাইবার যা পেট পরিষ্কার করতে সাহায্য করে।
  2. শসার রস:L শসার রস ত্বকের আদ্রতা বজায় রাখতে দারুন কাজে দেয়। এতে আছে অ্যাসকরবিক অ্যাসিড এবং ক্যাফেইক অ্যাসিড যা ত্বককে টান টান রাখে এবং ত্বকের নমনীয়তা বজায় রাখে।
  3. টমেটোর রস: টমেটোর রস অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট-এ ভরপুর। এটি আপনার ত্বকে সেবাম ক্ষরণ কম করে এবং আপনার ত্বকের বাতসল্য বজায় রাখে, ত্বকের বলিরেখা দূর করে এবং ত্বকে বয়সের ছাপ পড়তে দেয় না।
  4. বেদানার রস: বেদানার রসে থাকে অ্যান্টি এজিং ফ্যাক্টর যা রক্তকে পরিশুদ্ধ করে এবং ত্বকে বয়সের ছাপ কমায়। ত্বককে করে তোলে নরম ও উজ্জ্বল।
  5. পালং শাকের রস: সবুজ সবজির রস খেতে হয়তো সুস্বাদু নয় কিন্তু এগুলি নিখুঁত ত্বকের জন্য খুবই জরুরি। পালং শাকে থাকে আয়রন, ভিটামিন কে, সি এবং ই যা ফ্রী রেডিক্যাল কমিয়ে ত্বকের ক্ষয় প্রতিরোধ করে।
  6. পেঁপের রস: এই নিরীহ ফলের রস সবসময়ই খুব উপকারী। এতে থাকে প্যাপেইন নামক এনজাইম যা ত্বকের সমস্ত অশুদ্ধি দূর করে এবং ত্বকের জৌলুশ ফিরিয়ে আনে।

About Mokaddes

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *