জ্বর ঠোসা হলে কি করবেন, জেনে নিন

শীতে ঠোঁটে বা নাকের পাশে অনেকের জ্বর ঠোসা হয়। শীত ছাড়াও সারাবছর জ্বর ঠোসা হতে পারে। সাধারণত জ্বরের পরে এটি দেখা যায়। জ্বর ঠোসা হলে দেখতে যেমন খারাপ লাগে, তেমনি ব্যথাও হয় মারাত্মক। কারও কারও জ্বর ঠোসা থেকে রক্তও ঝরে। এ সময় কয়েকটা দিন অনেক কষ্টে কাটাতে হয়।

বিশেষজ্ঞরা বলেন, জ্বর ঠোসা ছোঁয়াচে। আর জ্বর ঠোসা সারতেও সময় লাগে। কেউ কেউ বলেন ভিটামিনের অভাবেই জ্বর ঠোসা হয়। তবে কারণ যাই হোক না কেন, জেনে নিন বিরক্তিকর, যন্ত্রণাদায়ক জ্বর ঠোসা দ্রুত সারানোর কয়েকটি ঘরোয়া উপায়…

  • অ্যান্টি ভাইরাল উপাদান সমৃদ্ধ টি ট্রি অয়েল তুলোয় নিয়ে জ্বর ঠোসায় লাগান। দিনে বেশ কয়েকবার লাগান আর ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকিয়ে তাড়াতাড়ি সেরে উঠুন।
  • সুতির কাপড়ে অ্যাপেল সিডার ভিনিগার ভিজিয়ে জ্বর ঠোসার ওপরে লাগান। দেখবেন দ্রুত উপকার পাবেন।
  • রসুনের কোয়া বেটে সরাসরি ক্ষত স্থানে দিনে অন্তত দুই থেকে তিনবার লাগান। দ্রুত সেরে উঠবেন।
  • ক্ষতস্থানে মধু লাগিয়ে রাখুন ৫ থেকে ১০ মিনিট। কারণ মধু অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল সমৃদ্ধ। তাই দিনে অন্তত এভাবে দু’বার ব্যবহার করুন। দেখবেন, জ্বর ঠোসা দ্রুত সেরে যাবে।
  • জ্বর ঠোসা আক্রান্ত স্থানে অ্যান্টিবায়োটিক ক্রিম লাগাতে পারেন। তাতেও উপকার পাবেন।

এসব পদ্ধতিতে দ্রুত জ্বর ঠোসা সেরে যাবে, আর ব্যথাও যাবে চটপট কমে। তবে কোনভাবেই জ্বর ঠোসা আক্রান্ত স্থানে নখ লাগাবেন না।

About Mukshedul Hasan Obak

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *