Breaking News

বৃদ্ধাকে বাঁচাতে কুয়ায় ঝাঁপ পুলিশ কনস্টেবলের

পানি তুলতে গিয়ে কুয়ায় পড়ে গিয়েছিলেন ৭০ বছরের এক বৃদ্ধা। আশপাশের মানুষ বিষয়টি টের পেলেও বৃদ্ধাকে উদ্ধার করতে পারেননি। পরে খবর দেওয়া হয় পুলিশকে। খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে পুলিশ। এসময় এক মুহূর্ত সময়ও নষ্ট না করে ওই বৃদ্ধাকে বাঁচাতে কুয়ার মধ্যে ঝাঁপিয়ে পড়েন এক পুলিশ কনস্টেবল।

‌ঘটনাটি ভারতের অন্ধ্রপ্রদেশের বিজয়ওয়াড়ার গুডুর গ্রামের। খবর আজকালের।

জানা গেছে, নিজের বাড়িতে কুয়া থেকে পানি তুলতে গিয়েছিলেন বৃদ্ধা সাবিত্রী। কিন্তু পানির পাত্রের ওজন সামলাতে না পেরে কুয়ায় পড়ে যান তিনি। তখন রাত প্রায় ১২টা বাজে। ঘটনার পর আশপাশের লোকজন স্থানীয় থানায় ফোন দেন। খবর পেয়ে ছুটে আসেন দুই পুলিশ কনস্টেবল এ শিবকুমার এবং শ্যাম। এসে দেখেন কুয়ার চারদিক ঘিরে দাঁড়িয়ে আছেন গ্রামবাসী। তারা বৃদ্ধাকে সাহায্যের চেষ্টা করেছেন। কিন্তু কুয়ার ভেতরে গভীর অন্ধকারের কারণে কিছুই দেখতে পাচ্ছিলেন না তারা।

এসময় এক মুহূর্তও না ভেবে কুয়ার পানিতে ঝাঁপ দেন এ শিবকুমার। চারপাশ তখন অন্ধকার। কুয়াটিও অনেক গভীর। আশপাশে কোনও মই বা দড়িও ছিল না। কিন্তু এসব কিছুই ভাবেননি শিবকুমার।

পুলিশ জানায়, শিবকুমার কুয়ায় ঝাঁপিয়ে পড়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই দড়ি জোগার করে আনেন সহকর্মী শ্যাম। এরপর গ্রামবাসীর সহায়তায় দু’‌জনকে টেনে ওপরে তোলা হয়।

শিবকুমার বলেন, ‘‌তখন কিছুই ভাবিনি। শুধু ভেবেছি, ওই বৃদ্ধাকে বাঁচাতে হবে। তাই ঝাঁপ দিয়েছি।’‌

তিনি জানান, বৃদ্ধাকে উদ্ধারের পর স্থানীয়রা হাসপাতালে খবর দেন। কিন্তু হাসপাতাল কর্মীরা ঘটনাস্থলে আসতে রাজি হননি। এরপর শিবকুমারই এক চিকিৎসককে ডেকে আনেন বৃদ্ধার চিকিৎসার জন্য।

About Mukshedul Hasan Obak

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *