মাথাভর্তি লাল সিঁদুর, নতুন করে সংসার করার জল্পনার অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়

বারবার নিজের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে কেউ যদি খবরের শিরোনামে উঠে আসেন। তিনি হলেন আমাদের সকলের প্রিয় অভিনেত্রী শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়। তাকে দেখতে যেমন সুন্দর, তেমন সুন্দর তার অভিনয় দক্ষতা। সব মিলিয়ে এখনো তিনি যে কোন অভিনেত্রী কে ঘায়েল করে দিতে পারেন।

তবে তার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে বারবার কাটাছেঁড়া করা, তিনি মোটেই পছন্দ করেন না। কিন্তু কিছু করার নেই, প্রতিবার তার ব্যক্তিগত জীবন যেভাবে সকলের সামনে উঠে আসে। তার ফলে বারবার উপহাসে শিকার হতে হয় তাকে। মাত্র ১৮ বছর বয়সে পরিচালক রাজীবের সঙ্গে বিবাহ করেছিলেন তিনি।

এর পর বেশ কিছু বছর তার সঙ্গে সংসার করার পর পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ার কারণে। রাজীবের সঙ্গে বিবাহ বিচ্ছেদ হয়ে যায়, শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়ের। তার এই বিবাহ সম্পর্ক থেকে একটি ছেলে রয়েছে যার নাম অভিমন্যু। এরপর তিনি বিয়ে করেন একজন মডেল কে।

কিন্তু সেই সম্পর্ক ভেঙে যেতে বেশিক্ষণ সময় লাগে নি। এরপর অনেকেই ভেবেছিলেন যে তিনি আর কোনো সম্পর্কে জড়িয়ে পড়বেন না। কিন্তু সমস্ত জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটিয়ে গত বছর তিনি আবার বিয়ে করেন রোশনকে।তার এই তৃতীয় বিবাহ করার সময় তাকে বহু উপহাসের শিকার হতে হয়েছিল সোশ্যাল মিডিয়াতে।

কিন্তু এবার হল আরেকটি নতুন ঘটনা। বেশ কিছুদিন আগে দেখা যাচ্ছে যে, শ্রাবন্তী এবং তার স্বামী একে অপরের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেল আনফলো রয়েছেন। এমনকি একে অপরের সমস্ত ছবি তারা নিজেদের ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেল ডিলিট করে দিয়েছেন। যদিও শ্রাবন্তী তার নিজের পদবী চেঞ্জ করেন নি, কিন্তু তবুও একটি প্রশ্ন থেকেই যায়।

এত কিছুর মধ্যে শ্রাবন্তীকে ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে নতুন ছবি পোস্ট করতে দেখা গেল। এই ছবিতে নায়িকার মাথায় রয়েছে চওড়া সিঁদুর। কপালে ছোট্ট লাল টিপ, পরনে সবুজ সিল্কের ভারি শাড়ি, সাথে লাল ব্লাউজ। সবকিছু মিলিয়ে নায়িকাকে দেখতে লাগছিল খুব সুন্দরী।

সুপারস্টার পরিবার শুটিংয়ের ফাঁকে এই ছবি তুলেছেন শ্রাবন্তী। ছবিতে মেকআপ আর্টিস্ট সুবীর মান্নার সঙ্গে দেখা গেছে তাকে। শুধু এই ছবি নয়, দুদিন আগে নীল শাড়িতে অভিনেত্রী ধরা দিয়েছেন ফেসবুকে। কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায় এর পরিচালিত সিনেমা কাবেরী। অন্তর্ধানে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা যাবে শ্রাবন্তীকে।

About Mukshedul Hasan Obak

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *