Breaking News

মুগ-পালংয়ের ধোকলা, নিয়মিত খেলে ডায়াবেটিস কমবে ম্যাজিকের মতো !

সম্প্রতি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO) তাদের এক সমীক্ষায় জানিয়েছে যে, সারা পৃথিবীতে ১ কোটি মানুষ কেবল অনিয়মিত খাদ্যাভ্যাস, ওবেসিটি, মানসিক অবসাদ এবং যথার্থ ডায়েট ফলো না করার জন্য ডায়াবেটিসে আক্রান্ত। আধুনিক চিকিৎসাবিজ্ঞানে ডায়াবেটিস তথা দেহে রক্তশর্করার পরিমাণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে অনেক ওষুধ আবিষ্কার হয়েছে। কিন্তু দিনের পর দিন ওষুধ না খেয়ে শুধু লাইফস্টাইল এবং খাদ্যাভ্যাসে পরিবর্তন এনে অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে রাখা যায় ব্লাড সুগার, স্বাস্থ্যবিদরা সকলেই একমত এ ব্যাপারে।

ডায়াবেটিসের রোগীদের অনেক খাবারেই অনেক নিষেধ থাকে। সে ক্ষেত্রে উপাদেয় খাবার খাওয়া খুব সমস্যার হয়ে যায়। সে রকম রোগীদের জন্য থাকল পালং ধোকলার রেসিপি। খুব চটজলদি তৈরি হয়ে যাবে এই পদ। আর এটি খুবই স্বাস্থ্যকর খাবার এটি। ফাইবার সমৃদ্ধ খাবার ব্লাড সুগার নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে। অ্যান্টি অক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ এবং গ্লাইসেমিক ইন্ডেক্স কম। মুগ-পালং ধোকলা বানাবেন কীভাবে?

উপকরণঃ মুগ- ১/২ কাপ কুচো করে কাটা পালং শাক- ১/২ কাপ নুন- ১/২ কাপ কাঁচা লঙ্কা- ২টো বেসন- দেড় কাপ ফ্রুট সল্ট- ১/২ কাপ হিং- ১/২ চা-চামচ কারি পাতা- তিনটে গোটা জিরে- ১ চা-চামচ তেল- পরিমাণ মতো কী ভাবে রাঁধবেন? মুগ ডাল, পালং আর কাঁচা লঙ্কা মিক্সিতে একটু জল দিয়ে ব্লেন্ড করে নিন। মিক্সিতে ব্লেন্ড করা হয়ে গেলে নুন আর বেসন জল দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে।

এ বার ফ্রুট সল্ট মিশিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। এ বার একটা বাটিতে তেল নিয়ে মিশ্রণটিকে ভালো করে নাড়িয়ে নিতে হবে, সমান ভাবে ছড়িয়ে দিতে হবে। এ বার ১০ থেকে ১২ মিনিট স্টিম করতে হবে। রান্না করার সময় মিশ্রণটিকে চৌকোনা আকারে কেটে নিতে হবে। এ বার একটা পাত্রে তেল নিয়ে গরম করতে হবে। সেখানে কাঁচা লঙ্কা, গোটা জিরে, কারি পাতা আর হিং দিয়ে নাড়াতে হবে। এটিকে এ বার ধোকলার উপরে ঢেলে দিন, সবুজ চাটনির সঙ্গে পরিবেশন করুন।

About Mukshedul Hasan Obak

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *