মুড়ি খেলে মিলবে যেসব উপকার

মুড়ির সঙ্গে চা খাওয়ার মজাই আলাদা! কম ক্যালোরির পেট ভরানোর খাবার হিসেবে এখন উচ্চবিত্ত মহলেও মুড়ির প্রচলন বাড়ছে। তবে জানেন কি? নিয়মিত মুড়ি খাওয়ার অনেক স্বাস্থ্য উপকারিতা রয়েছে। ওজন কমানোসহ শরীরের ক্যালসিয়ামের ঘাটতি রোধে মুড়ি কার্যকরী এক উপাদান।

সবারই জানা যে, মুড়ি অ্যাসিডটি রোধ করে। শরীরে যাদের হজমের সমস্যা রয়েছে, যাদের অ্যাসিডিটি হয়, তাদের ক্ষেত্রে মুড়ি খুবই উপকারী। তাই নিয়মিত মুড়ি খেলে অ্যাসিডিটি কমবে।

মুড়িতে রয়েছে উচ্চ পরিমাণে শর্করা। এটি আমাদের শক্তি বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। দৈনন্দিন কাজে সক্রিয় থাকতে জ্বালানি হিসেবে কাজ করে মুড়ি।

পেটের সমস্যায় শুকনো মুড়ি কিংবা ভেজা মুড়ি খেলে তাৎক্ষণিক উপকার পাওয়া যায়। মুড়িতে ভিটামিন বি ও প্রচুর পরিমাণে মিনারেল থাকায় রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। পাশাপাশি হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়।

মুড়ি চিবিয়ে খেতে হয়। এর ফলে দাঁত ও মাড়ির একটা ব্যায়াম হয়। নিয়মিত মুড়ি খেলে দাঁত ও মাড়ি ভাল থাকে। এছাড়াও মুড়িতে রয়েছে ক্যালসিয়াম, আয়রন ও ফাইবার, যা হাড় শক্ত করে। এছাড়া মুড়িতে রয়েছে শর্করা, যা প্রতিদিনের কাজে শক্তি যোগান দেয়।

কম ক্যালরির খাবার হিসেবে মুড়ি খেতে পারেন। বাড়িতে বা অফিসে যখনই হালকা ক্ষুধা লাগবে তখনই মুড়ি খেয়ে নিলে ক্ষুধা মিটবে, ক্ষতিও হবে না।

মুড়িতে সোডিয়ামের পরিমাণ অত্যন্ত কম থাকে। যারা উচ্চ রক্তচাপের সমস্যায় ভোগেন, তারা মুড়ি খেতে পারেন।

মুড়িতে রয়েছে নিউরোট্রান্সমিটার পুষ্টিগুণ। ফলে মুড়ি খেলে মস্তিষ্কের স্নায়ু উদ্দীপনাসহ বিভিন্ন স্বাস্থ্য উপকারিতা পাওয়া যায়। এটি মস্তিষ্কের উন্নতি এবং কগনেটিভ ফাংশনের উন্নিতে সাহায্য করে।

মুড়ি খাওয়ার আরেকটি স্বাস্থ্য উপকারিতা হলো-ওজন কমাতে সহায়তা। এই সুস্বাদু খাবার হতে পারে আমাদের স্বাস্থ্যকর ডায়েট স্ন্যাকস।

সতর্কতা

মুড়ির এত গুণ জানার পর হয়তো অনেকেই মুড়ি খাওয়ার প্রতি আগ্রহী হয়ে উঠবেন। তবে একটু সাবধান। কারণ উপকারিতার পাশাপাশি এর কিছু পার্শ্ব প্রতিক্রিয়াও রয়েছে। বেশি মুড়ি খেলে ডায়বেটিকের সম্ভাবনা থাকে।

মুড়ির উচ্চ পরিমাণ গ্লাইসিমাইক রক্তে গ্লুকোজের মাত্রা বাড়িয়ে দেয়। তাই মুড়ি পরিমিত পরিমাণে খাওয়া ভালো। মুড়ি কার্বোহাইড্রেট সমৃদ্ধ। তাই বেশি মুড়ি খেলে ওজন বৃদ্ধি পায়। ফলে স্থূলতা হতে পারে।

About Mukshedul Hasan Obak

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *