Breaking News

বিরিয়ানির হাঁড়িতে লাল কাপড় পেঁচানোর আসল রহস্য, অবশ্যই জেনে নিন

‘বিরিয়ানি’ নামটি শুনলেই জ্বিভের স্বাদ করোক গুলোকে যেন আটকে রাখা যায়না। আর রাস্তায় চলতি পথে সেই লাল কাপড়ে ঢাকা বড় হাড়ি টির দিকে চোখ পড়লে, অবশ্য শুধু চোখ নয় অনেকটা দূরে থাকতেই বিরিয়ানির যে মনমুগ্ধকর গন্ধ তা নাকে এসে পৌঁছালেই নিজেকে যেন আর ধরে রাখা যায়না। উফফফ…. কি তার সুগন্ধ! আর কি তার স্বাদের বাহার মন যেন ভরতেই চায় না! খিদের পেটে এক প্লেট গরম গরম বিরিয়ানি… উফহহ…যেনো অমৃত!

এই বিরিয়ানি মূলত মুঘোল খাবার। মুঘলের আমলেই এই বিরিয়ানি প্রথম ভারতে প্রবেশ করে। ভারতে প্রথম বিরিয়ানির প্রচলন হয়েছিল দিল্লি এবং লখনৌতে। তবে বাঙালির মন জয় করে উঠতে মোটেই বেশি সময় লাগেনি এই বিরিয়ানির। আর এখন তো মফঃস্বল থেকে শুরু করে বড়ো শহড় কলকাতার ও অন্যান্য শহরের অলিতে গলিতে এই বিরিয়ানির দোকান। তবে বিরিয়ানির দোকান যেখানেই হোক না কেন প্রায় প্রত্যেক দোকানেই বিরিয়ানি করার সেই বড় হাঁড়িটি সবসময় লাল কাপড় দিয়ে ঢাকা থাকে। কেন এই লাল কাপড় দিয়ে ঢাকা থাকে কখনো ভেবে দেখেছেন?

বেশি জটিল কিছু নয় একটু ভাবলেই এই বিষয়টি ধরা যায়। এই যেমন দেখুন না আমরা বন্ধুত্ব সম্পর্ক বোঝাতে গেলে তাকে অনেক সময় হলুদ গোলাপ দিয়ে থাকি, আবার শান্তি জনক কোন বার্তা দেবার সময় সাদা গোলাপ। আচ্ছা গোলাপ বাদ দিলাম, আমাদের দেশের জাতীয় পতাকার তিনটি রঙের ব্যাখ্যা তো আমরা সবাই জানি। পতাকার উপরে থাকা গেরুয়া রং টি শক্তি এবং সাহস এর ইঙ্গিত দেয়। এবং মাঝের সাদা রং শান্তি এবং অশোকচক্রটি সত্যের প্রতীক। আর শেষে থাকা সবুজ রং বৃদ্ধি এবং পবিত্রতা বোঝায়।

ঠিক তেমনি বিরিয়ানির হাঁড়িতে থাকা লাল কাপড়টির‌ও একটি নিজস্ব ব্যাখ্যা রয়েছে। আসলে মুঘলদের মধ্যে প্রথমে পারস্য সংস্কৃতির প্রভাব ছিল। আর সম্রাট হুমায়ুন সেই সময় ইরানে আশ্রয় নিয়েছিল। আর তখন পারস্য সম্রাট লাল গালিচার উষ্ণ অভ্যর্থনা জানিয়েছিলেন তাঁকে। খাবার পরিবেশনের সময় রৌপ্য পাত্রের জন্য রৌপ্য পোশাক, এবং ধাতব ও অন্যান্য সিলভার পাত্রের জন্য সাদা কাপড় ব্যবহৃত হতো। পরে মুঘল রাও তাদের দরবার শুরু করলে সেখানে তারা সম্মানিত ব্যক্তি বা কোন আধ্যাত্বিক ভক্তদের জন্য লাল রং এর কাপড় ব্যবহার করতো। আর যেহেতু বিরিয়ানি মুঘলদের বিশেষ খাদ্য এবং সেই মুঘলদের হাত ধরেই ভারতে বিরিয়ানির আগমন তাই তাদের সেই লাল কাপড়ের প্রচলন এখনো থেকে যায়।

আরেকটা বিষয় হলো লাল রঙ যেহেতু অনেক দূরে থাকতেই চোখে পড়ে যায় তাই এই প্রিয় খাদ্য বিরিয়ানির হাঁড়ি টি লাল কাপড়ে ঢাকা থাকলে বিরিয়ানি প্রেমিরা অনেক দূর থেকেই বুঝে যায় যে সেখানে রয়েছে তাদের মন ভালো করা সুস্বাদু খাবার ‘বিরিয়ানি’।

About Mukshedul Hasan Obak

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *