সালমান শাহর নায়িকা শিল্পীর পরিবারের ৩৫ জন করোনায় আক্রান্ত

প্রয়াত নায়ক সালমান শাহর সহ-অভিনেত্রী চিত্রনায়িকা আঞ্জুমান শিল্পীর পরিবারের প্রায় ৩৫ জন সদস্য করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। আক্রান্তদের মধ্যে অনেকে হাসপাতালে রয়েছেন, কেউ দ্বিতীয়বার করোনা পরীক্ষার অপেক্ষায় রয়েছেন। অনেকে বাসায় থেকে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

জানা যায়, পারিবারিক একটি বিয়ের অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করেই তাদের মধ্যে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। ধারণা করা হচ্ছে, সেই সময় এই চিত্রনায়িকা সপরিবারে করোনায় আক্রান্ত হন।

প্রথমে পরিবারের দু-একজন আক্রান্ত হলেও পরে পাঁচ-ছয়জন করে একসঙ্গে করোনায় আক্রান্ত হন। একে একে পরিবারের প্রায় সবাই করোনায় আক্রান্ত হন।

গত ২৮ নভেম্বর শিল্পীর প্রথম করোনায় আক্রান্ত হওয়ার খবর গণমাধ্যমে প্রকাশ পায়। সে সময় প্রথমে তিনি বাসায় চিকিৎসা নিলেও পরবর্তী সময়ে অবস্থার অবনতি হলে তিনি ঢাকার একটি হাসপাতালে ভর্তি হন।

পরিবারের সদস্যদের আক্রান্তের বিষয়ে শিল্পী জানান, তাঁর শ্বশুরের ১০ জন ছেলে-মেয়ে। তাদের স্ত্রী, ছেলে-মেয়ে, নাতি-নাতনিসহ প্রায় সবাই করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। 

শিল্পী বলেন, আমাদের পরিবারের একজনের বিয়ের জন্য স্বল্প পরিসরে পরিবারের সবাইকে একত্রিত হতে হয়েছিল। পরে সেখান থেকে আমার পরিবার, আমার ভাইয়ের পরিবার, আমার শ্বশুর-শাশুড়ি ও পরিবারের প্রায় সবাই করোনায় আক্রান্ত হন।

১৯৯৪ সালে আওলাদ হোসেন চাকলাদার পরিচালিত ‘নাগ নর্তকী’ ছবি দিয়ে চলচ্চিত্রে নাম লেখান শিল্পী। তবে শিল্পীর প্রথম মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা হলো ১৯৯৫ সালে আমিন খানের বিপরীতে ‘বাংলার কমান্ডো’। এরপর নায়করাজ রাজ্জাকের পরিচালনায় ‘বাবা কেন চাকর’ ছবির মধ্য দিয়ে প্রথম আলোচনায় আসেন এই অভিনেত্রী।

এক এক করে আমিন খান, বাপ্পারাজ, মান্না, রিয়াজ, রুবেলসহ বেশ কজন জনপ্রিয় নায়কের সঙ্গে জুটি বেঁধে সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন। অমর নায়ক সালমান শাহর সঙ্গেও একটি সিনেমায় কাজ করেছিলেন শিল্পী। ‘প্রিয়জন’ নামের সেই ছবিটি এ নায়িকার ক্যারিয়ারে উল্লেখযোগ্য ছবি। 

শিল্পীর মুক্তিপ্রাপ্ত সর্বশেষ চলচ্চিত্র দুটি হচ্ছে নায়করাজ রাজ্জাকের ‘প্রেমের নাম বেদনা’ এবং দেওয়ান নজরুলের ‘সুজন বন্ধু’।

About Sagor Ahamed Milon

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *